শুভ্র বন্দ্যোপাধ্যায়- এর কবিতাগুচ্ছ

শুভ্র বন্দ্যোপাধ্যায়- এর কবিতাগুচ্ছ

তাদের প্রিয় কোনও বর্তমান

ফার্ন দেখলেই ডাইনোসরদের কথা মনে
আমার শিহরন হয় ভাবলে যে
এই পম্বু গ্রামের ট্রি ফার্নের নিকট পূর্বজ দেখেছে (Sic)
বিকেলের হলদে ছায়ায় সেই বড় জানোয়ার
এই যে দেখা শব্দটায় জোর দেওয়া
মানে মানুষ কেন্দ্রীক একটা বৃত্ত
ও তাদের প্রিয় কোনও বর্তমান

আমি একেই অস্বীকার করতে চাইছি
কারণ এই গ্রামজ কিশোর জানে
পাথর শ্যাওলা আসলে পোকাদের

আমরা কখনও পোকাবিকেলের ক্রিমসনে দেখা করিনি
বা আমাদের অপেক্ষা কখনই
মানুষী বাক্যাতিরিক্ত কোনও স্তব্ধতা হয়ে ওঠেনি

হয়ত দৃষ্টি হয়ে উঠতে পারত পুঞ্জাকার কোনও ভঙ্গি
প্রেমিকের দ্রুতি সন্ধিপদের হালকা চলা

অথচ আমি কিন্তু বাঁশে ফুল আসতে দেখেছি
ওপড়ানো কদম গাছের শিকড়ের ফ্যাকাশে
আমি বহন করি শিরায়

এ পৃথিবীতে আসলে কিছুই কোনও কাজে লাগে না
এই স্পষ্ট জ্ঞান নিয়ে
তাদের প্রিয় কোনও বর্তমান গ্রীষ্মদুপুর
পুকুরের দিকে লতিয়ে চলে

আসলে সমস্ত কালই বন্ধ্যা
যখন সবকিছুই অতীতভাষ্য
তখন কবিতা কোন দিকে যাবে মাথা না ঘামানোই ভাল
আমরাও মৃত কবিদের বাড়ি খুঁজে বের করেছি,
সেইসব এলাকা থেকে অনির্দিষ্ট গন্তব্য প্রবণতা
চিহ্নিত করেছি যেমন বারবার বৃষ্টি পরিধির বাইরে উড়তে চাওয়া পাখি
আমাদের একত্র থাকা আসলে ওই উড়ানজেদ
তাদের প্রিয় কোনও বর্তমান

চারপাশে যখন সমবেত প্রতিবাদ
এতদিনের স্থিরতার শুকনো ফল কে পারদ যন্ত্রে মেপে দেখা
ভাবি ঘুরিয়ে দেওয়া যাবে
এতদিনের অতীতকামী প্রবাহ
দুপুর কে ভয় পাওয়ানোর মুখোশ আমরা তৈরি করে নেবো

যেমন এদেশে জল ও আগুন জড়িয়ে থাকে মৃত্যুর সঙ্গে
তেমনই তাদের প্রিয় কোনও বর্তমান
একটা চাবিকাঠি আমাদের জলের কাছাকাছি বিকেল হয়ে ওঠার

অথচ গোপন ইচ্ছা খেলনা রাজ্যের বিপ্লবী নেতা হওয়ার
ক্ষুধা নিয়ন্ত্রণকারী আঙুল ও সন্ত্রাস

শুধুই বাতাসের তৈরি আসবাব হয়ে উটছি আমরা

যেন বোলতার দল আচমকা আবিষ্কার করে নিয়েছে পাখিতে খাওয়া আম
পাশেই কারও লাশ ও তার ঝোলার বাঁশি

নতুন এক দানবীয় পুতুল নির্মাণে মেতেছি আমরা
তাদের প্রিয় কোনও বর্তমান তৈরিতে

রাস্তা কখনই বাঁকে না বাস্তুকারের অনিচ্ছায়
মোড়ের জ্যামিতি জুড়ে নতুন বেসাতি

বিকেলের গ্রীষ্মরং আবার ভোটের দিন
একধরণের কাগজের বাদ্যযন্ত্র আমরা
একধরণের ছায়া না তৈরি করতে পারা অ্যাসিড রৌদ্র

জমাট ভাবনার মত অসহ্য কোনও উপমা
কেন এই ফোসকা পড়া বাস্তব
কেন এই ফালতু বাগবিধির সামনে মাথা ঘুঁজে পালানো

কেন আমাদের নৈঃশব্দ্য ওদের খুলি ফাটিয়ে দিতে পারছে না?

CATEGORIES
TAGS
Share This

COMMENTS

Wordpress (0)